দেশব্যাপীজীবনশৈলীশিরোনামসর্বশেষসব খবর

পঙ্গপাল সদৃশ পোকা টেকনাফে, দ্রুত খেয়ে ফেলছে কাঁচাপাতা

কক্সবাজারের টেকনাফে একটি বাড়ির বাগানে পঙ্গপালের মত ছোট পোকা গাছপালা খেয়ে সাবাড় করে ফেলছে। দল বেঁধে গাছের পাতা ও শাখায় বসে একের পর এক পাতা খেয়ে নষ্ট করছে শত শত পোকা।

এটির ভিডিও আবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করেন বাড়ির মালিক। এ খবর ছড়িয়ে পড়লে জেলা কৃষি অফিসের পক্ষ থেকে ছবি তুলে কৃষি গবেষণাগারে পাঠানো হয়।

বৃহস্পতিবার সরেজমিনে দেখা গেছে, টেকনাফ সদর ইউনিয়নের লম্বরী গ্রামে ঐ বাড়ির বাগানে লতাপাতা, আগাছা থেকে শুরু করে শুকনো পাতা, কাঁচাপাতা ও গাছের শাখা-প্রশাখায় সারি সারি পোকা। কোথাও গাছের শাখা আছে পাতা নেই। আবার কোথাও পোকায় খাওয়ার মত ছিদ্রযুক্ত পাতা। একটি গাছের নিচে রয়েছে কিছু ছাই। যাতে আগুন জ্বালিয়ে পোকা দমনের চেষ্টা করেও কাজ হয়নি।

পঙ্গপাল সদৃশ পোকা টেকনাফে, দ্রুত খেয়ে ফেলছে কাঁচাপাতা
পঙ্গপালের মত দেখতে ছোট পোকা। ছবি: সংগৃহীত

বাড়ির মালিক সোহেল সিকদার জানান, আম গাছের অবস্থা দেখতে গিয়ে কয়েকদিন ধরে তিনি দেখেন শত শত পোকা। আম গাছ, তেরশল গাছসহ অন্য বেশকটি গাছের পাতা খেয়ে ফেলছে।

দিন দিন পোকার সংখ্যা যেমন বৃদ্ধি পাচ্ছে তেমনি পাখাও দেখা যাচ্ছে। এসব পোকা দেখতে পঙ্গপালের মতো।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা বলেন, পোকার ছবি দেখার পর কক্সবাজার জেলা অফিসে পাঠানো হয়েছিল। পঙ্গপালের পাখা থাকে এবং সহজে উড়তে পারে। এটির তেমন পাখা দেখা যায়নি, তবে এদিক ওদিক লাফাতে পারে। যেহেতু কাঁচাপাতা খেয়ে ফেলছে তাই এটি ক্ষতিকর পোকা।

পঙ্গপাল সদৃশ পোকা টেকনাফে, দ্রুত খেয়ে ফেলছে কাঁচাপাতা
কীটনাশক স্প্রে করা হয়। ছবি: সংগৃহীত

টেকনাফ উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা মো হাদিউর রহমান বলেন, পোকার নমুনা সংগ্রহ করে গবেষণাগারের পাঠানো হয়েছে। এখন পর্যন্ত সেখান থেকে কোনো নির্দেশনা পাওয়া যায়নি। এসব পোকা যাতে অন্য কোথাও ছড়িয়ে না পড়ে সে জন্য কয়েকবার কীটনাশক স্প্রে করা হয়েছে।

এদিকে গতরাতে সোহেল সিকদার ফেসবুকে বলেন, এ পোকাগুলো পঙ্গপাল নয়। এ বিষয়ে গুজব না ছড়াতে অনুরোধ জানান।

Total Page Visits: 345 - Today Page Visits: 1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Shares